সদ্যপ্রাপ্ত

স্পার্ম জালিয়াতি করে ৪৯ বাচ্চার বাবা হয়েছেন এক ডাক্তার…

তার নাম জন কারবাট। পেশায় চিকিৎসক। নেদারল্যান্ডসের হেগ শহরে একটি আইভিএফ ক্লিনিক চালাতেন। সন্তান পাওয়ার আকাঙ্খায় তার ক্লিনিকের শরণাপন্ন হতেন সন্তান ধারণে অক্ষম দম্পতিরা। কিন্ত সেখানে এক ধরনের জালিয়াতি করতেন তিনি।

ইন ভিট্রো ফার্টিলাইজেশন (আইভিএফ) পদ্ধতিতে টেস্টটিউবের মধ্যে দাতার শুক্রাণুর সাহায্যে ডিম্বাণুর নিষেক ঘটানো হয়। নিজের ক্লিনিকে তিনি যখন এই পদ্ধতিতে নিষেক ঘটাতেন তখন দাতার শুক্রাণুর বদলে নিজের শুক্রাণু ব্যবহার করতেন।

এভাবেই গত কয়েক বছরে ৪৯টি শিশু জন্ম নিয়েছে তার শুক্রাণু থেকে। সম্প্রতি তার ক্লিনিকে জন্মানো শিশুদের ডিএনএ টেস্টের রিপোর্ট সামনে আসতেই ফাঁস হয়েছে ওই চিকিৎসকের এমন জালিয়াতির কাহিনী।

আইভিএফ বিতর্ক সামনে আসে এ গত ফেব্রুয়ারিতে। তারপরই কারবাটের ক্লিনিকে জন্মানো শিশুদের ডিএনএ টেস্ট করানোর নির্দেশ দেন আদালত। গত শুক্রবার সেই ডিএনএ রিপোর্ট সামনে আসতেই গোটা বিষয়টি খোলাসা হয়েছে।

যদিও এত বড় জালিয়াতি করেও শাস্তি ভোগ করতে হবে না ওই ডাচ চিকিৎসককে। কেননা ২০১৭ সালে ৮৯ বছর বয়সে তার মৃত্যু হয়। বর্তমানে সেই ক্লিনিকটিও বন্ধ রয়েছে।

এছাড়াও চেক করুন

বাজার দাপিয়ে বেড়াচ্ছে সস্তার ইলেকট্রিক গাড়ি! প্রতি কি.মি. খরচ মাত্র ২ টাকা

দেশের বাজার দাপিয়ে বেড়াচ্ছে সস্তার ইলেকট্রিক গাড়ি! প্রতি কি.মি. খরচ মাত্র ২ টাকা – বর্তমানে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *